Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Saturday, April 15, 2017

যৌন মিলনের শুরুতেই দ্রুত বীর্যপাত? জেনে নিন রোধ করার ঘরোয়া উপায়

দাম্পত্য জীবনের শুরুতেই পুরুষেরা দ্রুতপতনের সমস্যায় ভোগেন। মিলনের শুরুতেই স্বামীর দ্রুত পতন শুধু স্ত্রীর চরম তৃপ্তির বিঘ্ন ঘটায় এমনটা নয় বরং দ্রুত পতনের কারনে স্বামীর মনের চাহিদাও অপূরণ থেকে যায়।প্রত্যেক নারী পুরুষের মনের চাহিদা থাকে মিলনের অধিক সময় নেওয়া।সদ্য বিবাহিত স্বামী স্ত্রীরাই প্রাথমিক মিলনের সময় এ সমস্যায় বেশি ভোগেন। এটা পরে আস্তে আস্তে ঠিক হয়ে যায়। কিন্তু দিনের পর দিন এমনটি চলতে থাকলে স্ত্রীর মনের ক্ষোভের সৃষ্টি হতে পারে এবং যার ফলে দাম্পত্য জীবনে অশান্তি দেখাদিতে পারে। দ্রুত পতনকে ডাক্তারী পরিভাষায় বলা হয় প্রিম্যাচিওর ইজাকুলেশন। অনেক পুরুষের মাঝেই এই সমস্যা দেয়া যা। মাঝে মধ্যে কখনও বিশেষ পরিস্থিতিতে বা অধিক উত্তেজনায় এমন হতেই পারে। কিন্তু এটা যদি নিত্যদিনের ঘটনা হয়ে দাঁড়ায় তাহলে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া জরুরী।দ্রুতপতন হতে পারে, হরমোনের সমস্যা, শারীরিক ক্লান্তি, স্নায়ুতন্ত্রের দুর্বলতা, হস্তমৈথুন করে লিঙ্গের কার্যকরী ক্ষমতা কমিয়ে ফেলার জন্য দায়ী হতে পারে এবং তাঁর সাথে অন্যান্য সমস্যার কারনে হতে পারে।পাঠক-পাঠিকাদের পাঠানো বার্তা থেকে আমরা জানতে পারি যে অধিকাংশ পুরুষ মিলনের শুরুর ২-৩ মিনিটের মধ্যেই বীর্যপাত করে ফেলেন। মিলনশুরুর মিনিট পাঁচের মধ্যে বীর্যপাত হয়ে গেলে এটাকে প্রিম্যাচিওর বলা হয়। ৮-১০ মিনিটের মধ্যে এমনটি ঘটলে তাঁকে প্রিম্যাচিওর বলা যায় না হয়। আর স্বাভাবিক মিলনের সময় ১০ মিনিট হওয়া উচিত। ১০ মিনিট মিলন করতে পারলে স্বামী স্ত্রী উভয় তৃপ্তিরলক্ষে পৌঁছে পারে।দ্রুতপতন রোধে কি করবেনঃ দ্রুত পতনের শুরুতেই ডাক্তারের কাছে ছোটাছুটি না করে তাঁর আগে নিজেই চেষ্টা করে দেখুন। কোনো নেশা দ্রব্য সেবন করে থাকলে তা পরিহার করুণ। নিজের যৌন উত্তেজনাকে নিয়ন্ত্রণ করুণ। এটা একদিনে হবে না সময় লাগবে, তবে চেষ্টা চালিয়ে যাবেন। মানসিক দৃঢ়তা থাকলে এবং স্ত্রীর সহযোগিতা পেলে ধীরে ধীরেসময় বাড়াতে পারবেন।আরো পড়ুনঃ দ্রুত বীর্যপাতঃ প্রতিকারে স্ত্রীর ভূমিকাআরো পড়ুনঃসহবাসের সময় বাড়ানোর ৩ টি নিয়মটোটকা চিকিৎসাঃদ্রুতপতন রোধ করতে এই ঘরোয়া দাওয়াত টি ব্যবহার করতে পারেন।প্রথমে এক চামচের চার ভাগের একভাগ কালোজিরা সঙ্গে সমপরিমান মেথি নিবেন এবং তাঁর সাথে একচামচ মধু নিবেন।এই তিনটি উপকরণ একসাথে ভালো করে মিশিয়ে মিশ্রণটি প্রতিদিন সকালে অন্তত ২০ দিন খাবেন। প্রথম দু-তিন দিন খেতে ভালো না লাগলেও পরে খেতে খেতে অভ্যাস হয়ে যাবে। মিশ্রণটি খাওয়ার আধ ঘন্টার মধ্যে অন্য কোন খাবার গ্রহণ করবেন না। ফল পাবেনই। কালো জিরা হরমোন সমৃদ্ধ হওয়ায় যৌন শক্তি বাড়াতে সাহায্য করে। প্রতি ১০০ গ্রাম কালো জিরাতে যেসব উপাদান রয়েছে…*.প্রোটিন ২৮০ মাইক্রোগ্রাম*.ভিটামিন বি ১.১৫ মাইক্রোগ্রাম*.নিয়াসিন ৫৭ মাইক্রোগ্রাম*.ক্যালসিয়াম ১.৮৫ মাইক্রোগ্রাম*.আয়রণ ১০৫ মাইক্রোগ্রাম*.ফসফরাস ৫.২৬ মিলিগ্রাম*.কপার ১৮ মাইক্রোগ্রাম*.জিংক ৬০ মাইক্রোগ্রাম*.ফোলাসিন ৬১০ আইউতাছাড়াও আপনার যৌন স্বাস্থ্যের সমস্যায় পরামর্শ ও চিকিৎসা পেতে যোগাযোগ করুণ যৌন রোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার মনিরুজ্জামান এম.ডি স্যারের সাথে। আপনার যেকোন সমস্যার সমাধান পেতে স্যারের কথাবলতে পারেন। কল দিন ০১৭০৭৩৩০৬৬০ভালো থাকুন, সুস্থ ও সুন্দর থাকুন। আপনার হাস্যোজ্জ্বল আনন্দময় জীবনের কামনায়।

Post Top Ad

Your Ad Spot

Pages