Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Friday, April 21, 2017

[হেলথ টিপস] লক্ষণ দেখে বুঝে নিন আপনারদেহে ভিটামিনের অভাব

সঠিক খাদ্যাভ্যাসনা থাকলে দেহে ভিটামিনের অভাবএবং এই সম্পর্কিত রোগে ভোগা খুবইসাধারণ একটি ব্যাপার। মুখের স্বাদেরকথা ভেবে যখন আমরা আমাদের খাদ্যতালিকা থেকে নানা ধরণের ভিটামিনও মিনারেল জাতীয় খাবার বাদদিয়ে দিই তখন আমাদের দেহে অভাব হয়ভিটামিনের।এবং আমরা ভুগি নানা ধরণের রোগে।দেহে ভিটামিনের অভাব হলে তার লক্ষণদেখা যায়। কিন্তু ভিটামিনের অভাবহলে কিছু লক্ষণ দেখা দেয়যা আমরা একেবারেইবুঝে উঠতে পারি না। এইধরনের অদ্ভুত লক্ষণযে আমাদের দেহে ভিটামিনেরঅভাবের কারণে হয়ে থাকে তা আমাদেরএকেবারেই অজানা থাকে।১) লাল ও সাদা ব্রণ:মুখ, বাহু, থাই এবং দেহের পেছনেরঅংশে লাল ও সাদাটে রঙের ব্রণউঠলে আমরা তা নিয়ে মোটেও চিন্তিতথাকি না। ভাবি সাধারণ ব্রণেরসমস্যা। কিন্তু আসলে দেহের এইসকলস্থানে লালচে ও সাদাটে রঙের ব্রণউঠা ভিটামিন এ ও ডি এবং এসেনশিয়ালফ্যাটি অ্যাসিডের অভাবের লক্ষণ।প্রতিকারঃ সূর্যের আলোতে বের হন,একটানা অনেকক্ষণ এসি ঘরে থাকবেন না,প্রচুর পরিমাণে মাছ, শাকসবজি ও ডিমরাখুন খাদ্য তালিকায়।২) হাত পায় এবং দেহের নানা অংশ অবশহয়ে যাওয়া:হাত পা বা দেহের নানা অংশ অবশহয়ে যাওয়ার ভুগে থাকেন অনেকেই।বেশীরভাগ সময়আমরা ভাবি একটানা একভাবে বসে থাকাওপর চাপ পড়ার ফল এটি। কিন্তুএগুলো ভিটামিন বি৯, বি৬ এবং বি১২ এরঅভাবজনিত লক্ষণ। এই ভিটামিনেরঅভাবের কারণে বিষণ্ণতা, রক্তস্বল্পতা,দুর্বলতা এবং হরমোনের ভারসাম্য নষ্টহওয়ার মতো লক্ষণও দেখা যায়।প্রতিকারঃ লাল চালের ভাত, বাদাম,ডিম, মুরগীর মাংস, সামুদ্রিক মাছ, কলা,ব্রকলি, ফুলকপি, বাঁধাকপি এবং সবুজ শাকরাখুন খাদ্যতালিকায়।৩) ঠোঁটের দুই কিনার ফাটা:ঠোঁট ফাটা এবং ঠোঁটের দুই কিনারফাটা একই জাতীয় সমস্যা নয়। কিন্তুআমরা এই জিনিসটি বুঝতেই পারি না।আমরা মনে করে ঠোঁট ফাটার মতোইঠোঁটের কিনার ফাটা শীতকালেরসমস্যা এবং খুব বেশি হলে পানিশূন্যতারলক্ষণ। কিন্তু এই ঠোঁটের কিনারফেটে যাওয়া ভিটামিন বি৩, বি২ ওবি১২ এবং আয়রন, জিংক ও দেহের রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা গঠনকারী গুরুত্বপূর্ণপ্রোটিনের অভাবের লক্ষণ।প্রতিকারঃ মুরগীর মাংস, সামুদ্রিক মাছ,ডিম, টমেটো, চীনাবাদাম, ডাল, দই,পনির, ঘি এবং ভিটামিন সি জাতীয়খাবার বেশি করে খান।৪) হাতে পায়ে ঝি ঝি ধরা:হাতে পায়ে ঝি ঝি ধরা, পায়ের পাতা,তালু এবং পায়ের পেছনেরঅংশে ব্যথা অনুভব করার সমস্যায়ভুগে থাকেন অনেকেই। এবং এসকল সমস্যারকারণ হিসেবে ভেবে থাকেনএকটানা বসে থাকা ও নার্ভে চাপ পড়া।কিন্তু এই সমস্যাগুলোরমূলে রয়েছে পানিতে দ্রবণীয়বি ভিটামিন, ম্যাগনেসিয়াম,ক্যালসিয়াম ও পটাশিয়ামের অভাব।প্রতিকারঃ কমলা, কলা, চীনাবাদাম,ডাবের পানি, সবুজ শাক, কাঠবাদাম,তাল, কিশমিশ, কাজু বাদামইত্যাদি রাখুন খাদ্যতালিকায়।৫) লালচে, আঁশ উঠা র্যা শ ও অতিরিক্ত চুলপড়া:মুখের ত্বকে লালচে ও আঁশ উঠা র্যা শএবং অতিরিক্ত চুল পড়া কোনো ধরণেরকেমিক্যালের প্রভাব নয় বা যত্নের অভাবনয়। এটি ভিটামিন বি৭ (বায়োটিন),ভিটামিন এ, ডি, ই এবং কে এর অভাবজনিতসমস্যার লক্ষণ।প্রতিকারঃ ডিম, মাছ, মাশরুম, ফুলকপি,বাদাম ও কলা রাখুন প্রতিদিনেরখাদ্যতালিকায়।

Post Top Ad

Your Ad Spot

Pages