Breaking

Post Top Ad

Your Ad Spot

Monday, October 31, 2016

জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষা - তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি -২১

রচনামূলক প্রশ্নোত্তর
প্রিয় পরীক্ষার্থী, আজ তথ্য ও যোগাযোগ
প্রযুক্তি বিষয়ের ওপর রচনামূলক প্রশ্নোত্তর
দেওয়া হলো।
প্রশ্ন: বাস্তব উদাহরণসহ একটি বাস টপোলজির
বিবরণ দাও।
উত্তর: বাস টপোলজিতে একটি মূল তারের
সঙ্গে সব কটি ওয়ার্কস্টেশন বা কম্পিউটার
সংযুক্ত থাকে। প্রতিটি কম্পিউটার মূল
বাসের সঙ্গে সংযুক্ত থাকে।
বাস টপোলজিতে মূল তারের ভেতর দিয়েই
উভয় দিকে তথ্য প্রবাহিত হয়। এ ক্ষেত্রে
কোনো একটি কম্পিউটার নষ্ট হয়ে গেলে অন্য
কম্পিউটারগুলোতে স্বাভাবিকভাবে কাজ
চলতে পারে। যেমন একটি বিদ্যালয়ে ১৫টি
কম্পিউটারের সমন্বয়ে একটি বাস নেটওয়ার্ক
টপোলজি তৈরি করা হবে। যেখানে একটি
মূল তারের সঙ্গে ওই ১৫টি কম্পিউটার যোগ
করতে হবে, যার মধ্য দিয়ে নেটওয়ার্কে তথ্য
প্রবাহিত হবে। এই ১৫টি কম্পিউটারের মধ্যে
একটি হবে নেটওয়ার্ক সার্ভার এবং বাকি
১৪টি হবে ক্লায়েন্ট কম্পিউটার।
এভাবে যে কেউ একটি বাস নেটওয়ার্ক
টপোলজি তৈরি করতে পারবে।
প্রশ্ন: স্টার টপোলজি কী? এ টপোলজি
ব্যবহারের সুবিধা ও অসুবিধাগুলো লেখো।
উত্তর: যে নেটওয়ার্কে একটি কম্পিউটার অন্য
একটি কম্পিউটারের সঙ্গে এমনভাবে যুক্ত
থাকে, যা দেখতে অনেকটা তারকার মতো,
তাকে স্টার টপোলজি বলে।
এ নেটওয়ার্কে হাব বা সুইচের মাধ্যমে
বিভিন্ন কম্পিউটার সংযুক্ত থাকে।
স্টার টপোলজির সুবিধা ও অসুবিধাগুলো
নিচে দেওয়া হলো।
সুবিধা:
১. এ টপোলজিতে কোনো কম্পিউটার নষ্ট হয়ে
গেলে সম্পূর্ণ সিস্টেম অচল হয়ে
যায় না।
২. ডেটা চলাচলের গতি বেশি।
৩. নতুন একটি কম্পিউটার সংযোগ দেওয়ার
প্রয়োজন হলে শুধু হাবের সঙ্গে সংযোগ
দিলেই চলে।
৪. কেন্দ্রীয়ভাবে এ টপোলজি নিয়ন্ত্রণ করা
যায় বলে ত্রুটি নির্ণয় সহজ।
৫. বর্তমানে এ পদ্ধতি বহুলভাবে ব্যবহূত হচ্ছে।
অসুবিধা:
১. হাব বা সুইচ নষ্ট হয়ে গেলে সম্পূর্ণ সিস্টেম
অচল হয়ে যায়।
২. প্রতিটি কম্পিউটার হাবের সঙ্গে সংযুক্ত
করার জন্য প্রচুর কেবেলর প্রয়োজন হয়, যা
ব্যয়বহুল।
প্রশ্ন: ট্রি টপোলজি কী? এ টপোলজি
ব্যবহারের সুবিধা ও
অসুবিধাগুলো লেখো।
উত্তর: যে টপোলজিতে কম্পিউটারগুলো
পরস্পরের সঙ্গে শাখা-প্রশাখার ন্যায়
বিন্যস্ত থাকে, যা দেখতে অনেকটা গাছের
মতো (যেমন: গাছের মূল ও শাখা-প্রশাখা
থাকে) তাকে ট্রি টপোলজি বলে। এখানে
গাছের মূল হচ্ছে হোস্ট কম্পিউটার, বাকি
কম্পিউটারগুলো হলো শাখা ও প্রশাখা।
ট্রি টপোলজির সুবিধা ও অসুবিধাগুলো নিচে
দেওয়া হলো।
সুবিধা:
১. ট্রি টপোলজিতে শাখা-প্রশাখার
মাধ্যমে নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণ সুবিধাজনক।
২. অফিস ব্যবস্থাপনার জন্য এ নেটওয়ার্ক
বেশি উপযোগী।
অসুবিধা:
১. মূল কম্পিউটার নষ্ট হলে সম্পূর্ণ নেটওয়ার্ক
অচল হয়ে যায়।
২. নেটওয়ার্কের গঠনপ্রকৃতি জটিল।
বাকি অংশ ছাপা হবে আগামীকাল

Post Top Ad

Your Ad Spot

Pages